April 27, 2018 1:59 pm A- A A+

বরিশালে কলেজ ছাএীকে চেতনানাশক দ্রব্য খাইয়ে ৩ জনে পালা ক্রমে ধর্ষন : ধর্ষকসহ আটক-৩

বানী ডেস্কঃ

বরিশাল নগরীর কাশীপুর গার্লস স্কুল এন্ড কলেজের দ্বিতীয় বর্ষের এক ছাত্রী গণধর্ষনের শিকার হয়েছেন। তাকে শেরে-ই বাংলা মেডিকেলেজ হাসপাতালের গাইনী বিভাগে ভর্তি করা হয়েছে।আজ শুক্রবার বেলা ১২টার দিকে বরিশাল নগরীর কলেজ রো এলাকার সিকদার ভিলায় এই ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে তিন ধর্ষককে গ্রেফতার করেছে কোতয়ালী মডেল থানা পুলিশ।বিষয়টি নিয়ে সন্ধ্যা ৭টায় প্রেস ব্রিফিং এর আয়োজন করেছে থানা পুলিশ। মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার ঘটনার ব্রিফিং করবেন বলে জানিয়েছেন সেকেন্ড অফিসার সত্য রঞ্জন খাসকেল।পুলিশ জানায়, আজ শুক্রবার সকালে ১৮ বছর বয়সি ওই ছাত্রী নোট আনতে বিএম কলেজের সামনে তার বয়ফ্রেন্ড সরকারী সৈয়দ হাতেম আলী কলেজের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র ইমতিয়াজের মেসে যায়।এ সময় স্থানীয় চিহ্নিত দুস্কৃতকারী বখাটে রাব্বী ওই ছাত্রীকে জোরপূর্বক সেখান থেকে কলেজ রোড এলাকার সিকাদার ভিলার একটি ছাত্র মেসে নিয়ে যায়।এরপর ওই মেসের বাসিন্দা বিএম কলেজ ছাত্র সাইফুল ইসলাম সজিবের কক্ষে নিয়ে চেতনানাশক দ্রব্য খাইয়ে কলেজ ছাত্রীকে রাব্বি, সজিব ও মানিক নামে ৩ জন পালা ক্রমে ধর্ষন করে।এদিকে বান্ধবীকে জোরপূর্বক তুলে নেওয়ার খবরটি পুলিশকে জানায় ইমতিয়াজ।এসময় কোতয়ালী মডেল থানা পুলিশ কলেজ রোডর ওই মেস বাসায় অভিযান পরিচালনা করে।এসময় সেখান থেকে ধর্ষক সজিবকে আটক করে। পরে তার দেয়া স্বীকারক্তি অনুযায়ী অভিযান চালিয়ে নগরীর মড়কখোলার পুল এলাকা থেকে রাব্বি এবং বিএম কলেজ এলাকা থেকে মানিককে গ্রেফতার করে।অপরদিকে পুলিশ ওই ছাত্রীকে উদ্ধার করে প্রথমে শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টার (ওসিসি) তে ভর্তি করে দেয়। তবে কলেজ ছাত্রীর শারীরিক অবস্থার ভালো না হওয়ায় সেখান থেকে তাকে হাসপাতালের সার্জারী ওয়ার্ডে প্রেরন করা হয়।সেখানে কলেজ ছাত্রীর প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে গাইনী বিভাগে প্রেরন করা হয়। পরে সেখানে ওই ছাত্রীর মেডিকেল পরীক্ষা সহ অস্ত্রপচার করা হয়েছে।

সংবাদটি পড়া হয়েছে মোট 264 বার